ট্রেন্ডিং নিউজ

কিভাবে IELTS-এ ভালো ফলাফল করবেন?

ইংরেজীতে “তাই না?” ব্যবহার করার কিছু সহজ টিপস!

খেয়ে আসুন আদিবাসীদের সুস্বাদু খাবার ”মুন্ডি”

তবে কি জাপানিজরা শীঘ্রই বিলুপ্তির পথে?

বিশ্বকাপ ফুটবল নিয়ে যে কুড়িটি চাঞ্চল্যকর তথ্য অনেকেই জানেন না!

শনিবার ২০ অক্টোবর, ২০১৮

বিশ্বকাপ ফুটবল নিয়ে যে কুড়িটি চাঞ্চল্যকর তথ্য অনেকেই জানেন না!

এ মাসের ১৪ তারিখে প্রথমবারের মতো রাশিয়াতে বসেছে বিশ্বকাপ ফুটবলের আসর, চলবে জুলাইয়ের ১৫ তারিখ পর্যন্ত। বিশ্বকাপ টুর্নামেন্টের শুরুতে টানা জয় পেয়ে আকাশে উড়ছে রাশিয়ার ফুটবল দল। উড়ছেন পুতিনও। এবার শেষটা ভালো করার পালা!

আসুন জেনে নিই কিছু চাঞ্চল্যকর ও মজাদার তথ্য, যেগুলো হয়তো আপনার বিশ্বকাপজনিত আবেগে নিয়ে আসবে বাড়তি জ্ঞান ও উচ্ছ্বাস!

১) বিশ্বকাপ শুরু হয়েছে ১৯৩০ সাল থেকে, স্বাগত এবং কাপ জেতা দেশ, উভয়ই ছিলো উরুগুয়ে। এর ভেতর প্রতি চার বছর অন্তর মোট কুড়ি বার এটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

২) সবচেয়ে বেশী বার কাপ জিতেছে ব্রাজিল, ৫ বার। এরপর ইতালি আর জার্মানি – উভয়ই ৪ বার করে।

৩) বিশ্বকাপ সাধারনত প্রতিবার একক কোন দেশে অনুষ্ঠিত হয়, কিন্তু ২০০২ সালে প্রথম বারের মতো জাপান ও কোরিয়ার যৌথ উদ্যোগে এই দুই দেশে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হয়।

৪) এবারের বিশ্বকাপে ৩২ টা দেশ খেলেছে। কিন্তু ২০২৬ সালে খেলবে মোট ৪৮ টা দেশ!

৫)  ইংল্যান্ড থেকে ১৯৬৬ সালে বিশ্বকাপের ট্রফিটি খোয়া যায় হুট করেই, পরে একটি কুকুর সেটিকে খুঁজে বের করে বিলাতের একটি রাস্তা থেকে, ফাইনাল ম্যাচের মাত্র কিছুদিন আগে।

৬) বিশ্বকাপের ইতিহাসে সর্বোচ্চ ম্যাচ স্কোর ছিলো ৭-৫, সুইসদেরকে হারিয়েছিলো অস্ট্রিয়া, ১৯৫৪ সালে।

MOSCOW, RUSSIA - JUNE 12 A Russian tourism shop selling a 2018 FIFA World Cup Russia football with flags of the competing nations on it in Moscow ahead of the 2018 FIFA World Cup Russia on June 12, 2018 in Moscow, Russia. (Photo by Matthew Ashton - AMA/Getty Images)

৭) বিশ্বকাপের ইতিহাসে প্রতিপক্ষের সাথে সর্বোচ্চ ড্র করেছে ইতালি, এখন পর্যন্ত ২১ বার!

৮) ইন্দোনেশিয়া বিশ্বকাপের ইতিহাসে সবচাইতে কম সংখ্যকবার অংশগ্রহণকারী দেশ। মাত্র একবার, ১৯৩৮ সালে।

৯) ব্রাজিল পৃথিবীর একমাত্র দেশ, ১৯৩০ সাল থেকে এখন পর্যন্ত তারা প্রতিটা বিশ্বকাপ খেলেছে। কোনটাতেই কখনো বাদ পড়েনি। এছাড়া অন্যান্য সব দেশই কোন না কোন বার বিশ্বকাপ থেকে বাদ পড়েছিলো।

১০) মেক্সিকো হচ্ছে বিশ্বকাপের ইতিহাসে সবচাইতে বেশীবার ম্যাচ হারা দল।  ২৫ বার।

১১)  বাজারে গুজব আছে, ভারত ১৯৫০ সালে বিশ্বকাপ থেকে নিজেদেরকে প্রত্যাহার করে নেয় তাদেরকে খালি পায়ে মাঠে খেলতে অনুমতি না দেবার কারণে।

১২) বিশ্বকাপ ফুটবলে কোন ম্যাচে একক কোন খেলোয়াড়ের সর্বোচ্চ গোল দেবার রেকর্ডটি রাশিয়ার ”অল্যাগ স্যালেনকো” এর। উনি ১৯৯৪ সালে ক্যামেরুনকে একটা ম্যাচে একাই ৫টি গোল দিয়েছেন।

১৩) রাশিয়ার যে কয়টা শহরের মধ্যে খেলা হবে, তাদের ভেতর সর্বোচ্চ দুরত্ব হচ্ছে প্রায় ১৫ শত কিলোমিটার। মানে ঢাকা থেকে ভারতের নাগপুরের দুরত্বের সমান।

১৪) সবচাইতে বেশী বয়স্ক গোলদাতার বয়স ৪২, যিনি ১৯৯৪ সালে ক্যামেরুনের হয়ে রাশিয়াকে একটি গোল দিয়েছিলেন।

১৫) বিশ্বকাপ ফুটবলে সবচাইতে ছোট দেশ হিসেবে আইসল্যান্ড খেলছে। এবারের বিশ্বকাপের মাধ্যমেই তাদের বিশ্বকাপ যাত্রা শুরু হলো।

১৬) ফুটবল বোদ্ধারা পরিসংখ্যান দেখে ও অন্যান্য বিষয়াদি বিবেচনা করে ধারনা করছেন যে, এবারের বিশ্বকাপটি ব্রাজিল জিততে পারে। অবশ্য প্রতিবারই নাকি কাপ জেতার ভবিৎষদ্বানীতে ব্রাজিল-ই থাকে।

১৭) বিশ্বকাপ ফুটবলে গতবারের অক্টোপাস পলের মতো এবারে আছে অ্যাকিলিস দ্যা ক্যাট এবং উট শাহীন। তবে অভিযোগ রয়েছে, তাদের বেশিরভাগ অনুমানই ভুল নাহয় উলটা হয়!

১৮) জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এবারের বিশ্বকাপ টুর্নামেন্টে রাশিয়ার মোট খরচ হচ্ছে ১১ বিলিয়ন ডলার। বিশ্বকাপ টুর্নামেন্ট হচ্ছে রাশিয়ার ১১টি শহরে। আর এসব শহরে নতুন নতুন স্টেডিয়াম ও অবকাঠামো নির্মাণে আরো ১৩ বিলিয়ন ডলার খরচ করেছে রুশ সরকার। ২০১০ সালে দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপ টুর্নামেন্টের মোট ব্যয়ের তুলনায় এই অঙ্ক চার গুণ বেশি। অবশ্য বিভিন্ন ক্রেডিট রেটিং এজেন্সি বলছে, এত ব্যয়ের পরও তা রুশ অর্থনীতিতে কমই প্রভাব রাখবে।

১৯) বিশ্বকাপ ফুটবল শুরু হবার পর থেকে মাত্র দু বার বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হয়নি ২য় বিশ্বযুদ্ধের জন্য। ১৯৪২ ও ৪৬ সালে।

২০) বিশ্বকাপ ফুটবল হচ্ছে পৃথিবীর সবচাইতে বেশী দর্শকনন্দিত খেলা। অর্থাৎ, এই খেলাটি পৃথিবীর সবচাইতে বেশী লোক দেখে থাকেন। গত বারের বিশ্বকাপ যত গুলো মানুষে দেখেছে গ্যালারি, টিভি ও অনলাইনে এবং শুনেছে বেতারে, তার মোট সংখ্যাটা হচ্ছে প্রায় তিনশত ত্রিশ কোটি। মানে, পৃথিবীর মোট জনসংখ্যার প্রায় অর্ধেক লোক ২০১৪ সালের ফুটবল বিশ্বকাপ দেখেছে।

তথ্যসূত্রঃ দ্য রোড ট্রিপস ডট কম। ছবি কৃতজ্ঞতাঃ গুগল ডট কম।

 

Comments

মন্তব্য করুন

এই বিভাগের অন্যান্য পোস্ট