ট্রেন্ডিং নিউজ

বাংলাদেশী টিভি চ্যানেলে সোফিয়ার সাক্ষাৎকারঃ এ ব্যর্থতার দায়ভার কার?

এবার লাইভ লোকেশন শেয়ারিং ফিচার নিয়ে এলো উবার!

পেপল এর দেশে না আসা নিয়ে স্যাটায়ার!

এ পর্যন্ত সবচেয়ে বেশী বিক্রি হওয়া ২০ টি মোবাইল হ্যান্ডসেট!

আপনার ঘরের নতুন অতিথির আগমন বার্তা জানাবার কিছু অভিনব উপায়!

বুধবার ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৭

কচি পেঁয়াজপাতা! যা আপনার ঘরের ফ্রিজের ভেতরও বড় হতে পারে!

কিছুদিন আগে ফ্রাইড রাইস রান্না করার জন্য আমি বাজার থেকে কিছু ”স্ক্যালিয়ন্স” (Scallions, দেখতে অনেকটা পেঁয়াজ পাতার মতো) কিনেছিলাম বেশ দাম দিয়ে। ছোট্ট একটা আঁটি কিনেছিলাম ৮০ টাকা দিয়ে, শীতকালে যার দাম কোনভাবেই ১০ টাকার বেশী হবে না। তো এর গোড়াগুলো শেকড়সহ কেটে ফেলে দিচ্ছিলাম, পরে ভাবলাম বুয়াকে বলবো এগুলো আমাদেরয় বাগানের টবে পুঁতে রাখতে। বুয়া আসেন সকাল বেলা। তাই আগের দিন রাতে সেগুলো আমি একটা পলিথিন ব্যাগে মুড়িয়ে ফ্রিজে রেখে দিলাম, সকালে বুয়ার হাতে তুলে দিবো।

কি এক কারণে আমার আর মনে নেই বুয়াকে এটা বলার কথা। তিনদিন পর খেয়াল হলো, আরে আমি তো ফ্রিজে পেঁয়াজ পাতার গোড়াগুলো রেখেছিলাম, ওগুলোর কি অবস্থা? আমি ফ্রিজ থেকে পলিথিন বের করে খুলে অবাক হয়ে দেখলাম যে, প্রতিটি কাটা শেকড় থেকে খুব চিকন চিকন সবুজ রংয়ের সতেজ ও কচি পেঁয়াজ পাতা বের হয়েছে! আমি এই জিনিস দেখার জন্য মোটেও প্রস্তুত ছিলাম না। নীচে ছবি দিলাম।

যে অবস্থায় পলিথিনে মুড়িয়ে রেখেছিলাম…

তিনদিন পর ফ্রিজ থেকে বের করে আমি যা দেখলাম…

 


ফ্রিজের ভেতর মাটি, পানি ও বায়ু ছাড়া এই জিনিস কিভাবে বৃদ্ধি পেলো?
 

নেট ঘেঁটে জানতে পারলাম যে, এটা স্বাভাবিক ঘটনা। বোতলে পানি ভরে তার ভেতর শেকড়সহ স্ক্যালিয়ন ভরে রাখলেও নাকি সেগুলো খুব দ্রুত বাড়ে। কিন্তু ফ্রিজের কথা কোথাও লেখা নেই। ফ্রিজের ভেতরও যে এগুলো বড় হয়, সেটা মনে হয় আমিই প্রথম আবিষ্কার করলাম। ব্যক্তিগতভাবে পেঁয়াজপাতা আমি খুবই পছন্দ করি। ফ্রাইড রাইস বানাতে তো বটেই, এমনকি ডালে বা নুডুলসে বা পাস্তায় গার্নিশ হিসেবে এর কোন তুলনা নেই। খাবারের স্বাদও অনেক বেড়ে যায়।


এই ফাঁকে স্ক্যালিয়ন নিয়ে কয়েকটা কথা বলে নেইঃ

১. Scallions এর আরেক নাম Green Onions (বাংলায় বলে পেঁয়াজ পাতা, সাথে সবুজ রংয়ের পাতা থাকে বলে এই নাম।)

২. একে অনেক দেশে Spring Onions নামে ডাকা হয়। কিন্তু এটা ভুল। দুটো এক জিনিস নয়। স্ক্যালিয়ন এক ধরনের সবজি, যেটি খাবারে গার্নিশ বা herbs হিসেবে তো বটেই, রান্নার কাজেও চালাতে পারবেন। অপরদিকে স্প্রিং অনিয়নের গোঁড়াতে ছোট ছোট পেঁয়াজ থাকে। গোড়ার এই ছোট পেঁয়াজ ছাড়া এই দুটোর মাথে আর কোন মিল নেই বলে অনেকেই গুলিয়ে ফেলেন।

 

এটাকেই বলে স্ক্যালিয়ন্স! বাংলায় ‘পেঁয়াজ পাতা’!

 
৩) Spring Onions সাধারন বাজারের পেঁয়াজের চাইতে খেতে বেশী মিষ্টি, রসালো আর ঝাঁঝ কম। কিন্তু স্ক্যালিয়নের চাইতে এর ফ্লেভার আর ঝাঁঝ দুটোই বেশী। এদের পেঁয়াজগুলো লাল ও সাদা – দুটোই হয়ে থাকে।
৪) Green Onions কে কানাডা আর ইংল্যান্ডে Spring Onions বলে। এই কারণেও পাবলিক অনেক দ্বিধান্বিত হয়।
 

আর একে বলে গ্রিন অনিয়ন্স (গোঁড়াতে পেয়াঁজ আছে)

 ) Scallions আর Spring Onions এর ফ্লেভার আর টেক্সচার দুটোই প্রায় এক। কিন্তু ফ্লেভারের তীব্রতায় ভিন্নতা রয়েছে। আপনার রান্নার প্রয়োজনীয়তা অনুসারে এই দুটোকে নির্বাচন করুন।
৬) আমাদের শহুরে লোকাল বাজারে যা পাওয়া যায়, সেগুলো scallions, আর গ্রামের বাজারে যা পাওয়া যায় সেগুলো গ্রিন অনিয়ন্স।

লেখা ও ছবিঃ প্রলয় হাসান

Comments

মন্তব্য করুন

এই বিভাগের অন্যান্য পোস্ট

%d bloggers like this: