হলিউডের সেরা ১ ডজন যন্ত্রমানব চরিত্র!

ব্যাক্তিগতভাবে আমাদের অনেকেরই হয়তো সবচাইতে প্রিয় মুভি-ঘরানা হচ্ছে সাই-ফাই বা বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনী। কারন খুব ছোটবেলা থেকেই আমরা সাইফাই গল্প ও উপন্যাসের পাঢ় ভক্ত, এখনো তাই আছি। আমাদের গত প্রজন্মের দেখা প্রথম বিদেশী মুভি ছিলো একটি সাই ফাই মুভি (টারমিনেটর টু)। সঙ্গতকারনেই, আধুনিক সায়েন্স ফিকশনের অন্যতম প্রধান উপাদান হচ্ছে যন্ত্রমানব বা রোবট।  অনেক সায়েন্স ফিকশন গল্পেও রোবটের গাঢ় উপস্থিতি রয়েছে। রোবট নিয়ে আমাদের আগ্রহের কোন কমতি নেই। যেখানেই রোবট সংক্রান্ত লেখা বা মুভি পেয়েছি, হজম করে ফেলার চেষ্টা করেছি। সায়েন্স ফিকশন মুভিতে রোবটের ব্যবহার কিন্তু নতুন কিছু নয়, বরং একেবারেই প্রাচীন। আধুনিক মুভির ইতিহাসে গত অর্ধ শতকেরও বেশী সময় ধরে শতাধিক মুভিতে রোবট বা যন্ত্রমানব চরিত্রের ব্যাপক ব্যবহার ঘটেছে। এমনকি, কিছু কিছু রোবট চরিত্র পেয়েছে রীতিমতো আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তা।  আজ আমরা হলিউডের সেই সব ডাকসাইটে রোবট-চরিত্রের একটা সংক্ষিপ্ত তালিকা তৈরী করার চেষ্টা করবো।

bluesky_robots3.jpg__715x415_q85_crop_upscale

এনিমেশন ফিল্ম Robots (২০০৫) এর জন্য বানানো একটি পেন্সিল স্কেচের খসড়া দেখা যাচ্ছে!

বলা বাহুল্য, রোবট এমনিতেই একটা খটমটে রসকষহীন চরিত্র। সুতরাং, তাকে আপামর দর্শকদের কাছে জনপ্রিয় করে তুলতে পরিচালকে হিউম্যান সাইকোলজি, হিউম্যান ইমোশন ও ফিলসফি ইত্যাদি মানবিক ব্যাপার স্যাপারগুলোকেও রোবটের যান্ত্রিক মস্তিস্কে খুব কৌশলে ঢুকিয়ে দিতে হয়। এই গুলোও এর ব্যতিক্রম নয়। আর তাইতো আমরা পেয়েছি/পাচ্ছি অসাধারন সব রোবট চরিত্র! যেগুলো শুধু শিশু কিশোরই নয়, মন জয় করে নিয়েছে দেশ বিদেশের আবালবৃদ্ধবণিতারও!

Ed 209 defense robot

একটি ইডি-২০৯ প্রতিরক্ষা রোবট

সালের ক্রমানুসারে সাজানো হলো; মানে একেবারে ৭০ এর দশকের  মান্ধাতা আমল থেকে একদম সাম্প্রতিক রোবটিক চরিত্র! এবং প্রতিটি মুভিরই টরেন্ট ডাউনলোড লিংক দেবার চেষ্টা করেছি। যদিও ১০ নম্বরটি বাদে সবগুলোই আমি ইতোমধ্যেই দেখে ফেলেছি। B-)  আমি সবাইকেই সুপারিশ করবো সবগুলো মুভিই দেখার জন্য। বিশেষ করে, রোবট প্রেমী দর্শকদের জন্য র‌্যাংকিয়ের প্রথম তিনটি মুভি অবশ্য দেখ্য। (অবশ্য দেখ্য নামে কোন শব্দযুগল বাংলা অভিধানে নেই মনে হয়। তবে ’অবশ্য পাঠ্য’ থাকলে ’অবশ্য দেখ্য’-ও থাকা উচিত)। কারন আমি মূলতঃ ঐ তিনটি মুভি দেখেই এই পোষ্টটি লিখতে অনুপ্রাণিত হয়েছিলাম।

খুব সম্ভবত, মুভির রোবটিক চরিত্র নিয়ে বাংলা ভাষায় এটিই সর্বপ্রথম  এবং এখন পর্যন্ত একমাত্র স্বতন্ত্র পোষ্ট। 

১২) মুভির নামঃ

Star Wars (১৯৭৭ সাল)

রোবট-চরিত্রের নামঃ

C-3P0

900570_press01-001

সি থ্রিপিও-এর মাধ্যমেই খুব সম্ভবত আধুনিক হলিউডের মানবাকৃতির রোবটিক চরিত্রের যাত্রা শুরু হয়।  আজ থেকে প্রায় ৩৭ বছর আগে এটি বক্স অফিস হিট করে! মানে সি থ্রিপিও নামের এই রোবটটির বয়স আপনার-আমার চাইতেও অনেক বেশী! সেই আমলে শিশু, কিশোর ও তরুন দর্শকদের মাঝে তুমুল জনপ্রিয়তা পায়।  এটি ৩০ ধরনের কর্মাবলীতে পারদর্শী। অসংখ্য উপায়ে মানুষের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করতে পারে। ২০০৪ সালে আমেরিকার ’রোবট হল অব ফেইম’ – এ একে প্রথম অভিষিক্ত করা হয়।

RHOF_poster-1345540328855

(প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, অনেকেই হয়তো জানেন না যে,  মুভিতে ব্যবহৃত রোবটিক প্রযুক্তির  উন্নয়নকে স্বীকৃতি দানের জন্য ২০০৩ সালে Carnegie Mellon University ’রোবট হল অব ফেইম’ প্রতিষ্ঠা করে। মুভি, সমাজ ও দৈনন্দিন জীবনে রোবটের অবদান ও প্রেরণাকে তুলে ধরাই এর কাজ। এ বিষয়ে আরেকদিন বিস্তারিত লেখার ইচ্ছে রয়েছে। আপাততঃ কিছু ছবি দিলাম এই হলের।)
robot-hall-of-fame2012-02-1506-29-01800

২০১২ সালের হল অব ফেইমের একটি ছবি। আরো ছবি দেখতে এখানে ক্লিক করুন। robotstour_photor5

পোষ্টের কলেবর বৃদ্ধির আশঙ্কায় সিপিথ্রিও নিয়ে বিস্তারিত কিছু লিখলাম না। যারা বিস্তারিত জানতে চান তারা এখান থেকে জেনে নিতে পারেন। এ ছাড়াও সে মুভিতে আরো একটি রোবট চরিত্রও দর্শদের নজর কাড়ে যার নাম R2-D2. এটি দেখতে ফানি, কিউট আর গোলগাল, বুদ্ধিদীপ্ত! মুভির টরেন্ট লিংক

Star-Wars-7-R2-D2-Photo

একটি R2-D2 রোবট

১১) মুভির নামঃ

The Terminator (১৯৮৪ সাল)

রোবট চরিত্রের নামঃ T-100

Terminator-2-Arnold-Schwarzenegger-700x394

আমার মনে হয় না,  এই চরিত্রটি নিয়ে খুব বেশী কিছু বলার আছে। কারন আমার অন্যতম প্রিয় নায়ক আর্নল্ড অভিনীত এই অতি মানবীয় রোবট চরিত্রটি মুভির ইতিহাসে এতটাই জনপ্রিয় ও এত ভীষন পরিমানে উল্লেখযোগ্য যে,  এই বিষয়ে বিস্তারিত বলার চেষ্টার করা মানে বাতুলতা মাত্র। তবে শুধু এটুকু বলি, টারমিনেটর ২ আমার জীবনে দেখা প্রথম মুভি। আমি তখন ক্লাস টুতে পড়ি। পরবর্তীতে এই মুভিটি আমি কম করে হলেও আরো ৬/৭ বার দেখেছি এবং প্রতিবারই মনে হয়েছে, আমি এই প্রথম দেখছি। আমি এখনও  এই চরিত্রটি মিস করি এবং আজও নতুন কোন টারমিনেটর মুভির সিকুয়েলে এই চরিত্রটি খুজেঁ ফিরি! :) বলা বাহুল্য,  পুরো টারমিনেটর সিরিজে T2 ভার্সনের রোবটগুলোই সবচাইতে বেশী বুদ্ধিদীপ্ত, আকর্ষনীয় ও  হেভি ওয়েট  এ্যাকশান হিরো।  টরেন্ট ডাউনলোড লিংক।

১০) মুভির নামঃ

Short Circuit (১৯৮৬ সাল)

চরিত্রের নামঃ জনি ৫।

রোবট- জনি ৫

হতে পারে  এই মুভিটির নাম অনেকেই শুনেননি, এমনকি আমিও না, তবু এটিকে আশির দশকের সবচাইতে স্মরনীয় রোবট হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়েছে। দেখতে কদাকার এই রোবটের মুভির কাহিনীটি বেশ চমৎকার। আমেরিকার সেনাবাহিনীর জন্য পরীক্ষামূলকভাবে একটা রোবট বানানো হয়, যেটি কিনা হঠাৎ একদিন বজ্রপাতের আঘাতের কারনে কিছু অতি-রোবটীয় গুনাবলী অর্জন করে, যেমনঃ প্রখর বুদ্ধিমত্তা, ও মানুষের মতো আবেগী একটি হৃদয়। সুযোগমতো সে একদিন ল্যাব থেকে পালিয়ে যায়। আইএমডিবিটরেন্ট ডাউনলোড লিংক।

(৯) মুভির নামঃ

RoboCop (১৯৮৭ সাল)

রোবোকপ – একটি সুপার কপের গল্প!

মনে আছে সেই পুলিশ অফিসার এ্যালেক্স মারফির কথা? বোমা বিস্ফোরণে শরীরের কিছু প্রধান অংগ হারানোর পর যাকে কিনা বানানো হয়েছিলো একটা সাইবর্গ মানে অর্ধেক মানুষ ও অর্ধেক মেশিনে। তারপর তাকে মিশনে পাঠানো হয়, রাতারাতি সে শহরের অপরাধীদের কাছে যতদূতে পরিনত হয়। এই রোবটের ডিজাইনটি ছিলো খুবই ফিউচারিষ্টিক! সেই আমলের আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তা পেয়েছিলো এই রোবটিক চরিত্রটি। একে ঘিরে তৈরী হয় জনপ্রিয় টিভি সিরিজ, এমনকি এটি এতটাই জনপ্রিয় একটা চরিত্র যে গতবছর এই মুভিটির রিমেকও করা হয়। এই চরিত্রের পাশাপাশি মুভিতে আরেকটি রোবটকেও ফোকাস করা হয়, যার নাম ইডি-২০৯। টরেন্ট ডাউনলোড লিংক।

ED-209

(৮) মুভিঃ

The Iron Giant (১৯৯৯ সাল)

চরিত্রঃ চরিত্রের নামানুসারেই মুভির নামকরণ করা হয়

the-iron-giant-(1999)-large-picture

শিশু-কিশোর নিয়ে দেখার মতো অত্যন্ত চমৎকার একটি মুভি। ব্রেড বার্ডের এক অনবদ্য সৃষ্টি এই এনিমেশন মুভিটি। আমি যখন এটাকে কয়েক বছর আগে প্রথম দেখি, তখনই এই মুভিটি আমার প্রিয় তালিকায় চলে গেছে। আয়রন জায়ান্ট নামের এই অতিকায় রোবটটি আদতে একটি এলিয়েন রোবট, যাকে কিনা আধুনিকায়ন করা হয়।  একাধারে সে একটি অস্ত্র ও রক্ষক, আবার একই সাথে সে ভালো ও খারাপের মিশ্রন।  মাত্র ৯ বছর বয়স্ক একটা বাচ্চা ছেলের সাথে ঘটনাক্রমে তার বন্ধুত্ব হয়ে যায়।  এই নিয়ে রোবট আর মানব শিশুর বন্ধুত্বের এক অসামান্য   কাহিনী।  টরেন্ট ডাউনলোড লিংক।

(৭) মুভিঃ

Bicentennial Man (১৯৯৯ সাল)

চরিত্র: এন্ড্রু মার্টিন। (একটি এন্ড্রয়েড চরিত্র)

916YrYjRoIL._SL1500_

সাই-ফাই উপন্যাসের গুরু  বিশ্বখ্যাত স্যার আইজ্যাক আসিমভের তৈরী  ইন্টারেস্টিং এই রোবটিক চরিত্রে অভিনয় করেন বিশ্বখ্যাত কমেডিয়ান ও আমার অন্যতম প্রিয় অভিনেতা রবিন উইলিয়ামস। এই রোবট চরিত্রটি মানব চরিত্রের সাথে মিশে যাবার অভিযানে নামে এবং খুব ধীরে ধীরে সে মানবিক আবেগ অনুভূতি অর্জন করতে শেখে! এটি এতটাই অসামান্য  একটা মুভি যে এটি তার পরের বছর অস্কার নমিনেশনও পায়। টরেন্ট লিংক। 

(৬) মুভিঃ I, Robot (২০০৪ সাল)

চরিত্রঃ সনি (Sonny)

আই, রোবট – আমি রোবট (২০০৪)

২০৩৫ সালের ঘটনার আর্বতে গড়ে উঠেছে এর কাহিনী। হিউম্যানয়েড চরিত্র ’সনি’ একটি অত্যাধুনিক রোবট, যার রয়েছে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ও মানবিক আবেগ। হলিউডের রোবটিক মুভির ইতিহাসে যতগুলো আধুনিক ও নজরকাড়া  ডিজাইন করা হয়, সনির ডিজাইন তাদের একটি।  এই ডিজাইনের কারনে ডিজাইনার বেশ কয়েকটি পুরস্কারও জিতেন। টরেন্ট।  বিস্তারিতঃ

এন-৫ প্রজাতির রোবটেরই একটি আপগ্রেডেড ভার্সন হচ্ছে সনি!

এন-৫ প্রজাতির রোবটেরই একটি আপগ্রেডেড ভার্সন হচ্ছে সনি!

(৫) মুভিঃ

WALL·E (২০০৮)

চরিত্রঃ ওয়ালি।

wall-e-banner

এই এনিমেশন ফিল্মটি  খোদ এনিমেশন তথা মুভির ইতিহাসের অন্যতম সেরা মুভি, তাই যথার্থ কারনেই ২০০৯ সালে এটি একটি অস্কার পুরস্কার লাভ করেছে,  এবং আইএমডিবির সেরা ২৫০ টি মুভির র‌্যাংকিয়ে এটির অবস্থান ৬২ নম্বরে। ওয়ালি চরিত্রটি আদতে একটি ময়লা আর্বজনা ফেলার জন্য বানানো নিতান্তই সস্তা ও আপাতঃ গুরুত্বহীন রোবটের চরিত্র। অথচ একই সাথে একে ঘিরে গড়ে ওঠে দারুন রোমান্টিক একটি গল্প, সেই সাথে মানব জাতির বাচাঁ মরার প্রশ্নে ওয়ালির সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখার গল্প!  টরেন্ট লিংক।

(৪) মুভিঃ

Real Steel (2011)
Real Steel poster Rating: 7.1/10 (231840 votes)
Director: Shawn Levy
Writer: John Gatins (screenplay), Dan Gilroy (story), Jeremy Leven (story), Richard Matheson (short story “Steel”)
Stars: Hugh Jackman, Dakota Goyo, Evangeline Lilly, Anthony Mackie
Runtime: 127 min
Rated: PG-13
Genre: Action, Drama, Sci-Fi
Released: 7 Oct 2011
Plot: In the near future, robot boxing is a top sport. A struggling promoter feels he’s found a champion in a discarded robot.

চরিত্রঃ

Atom

এটমকে বক্সিং শেখাচ্ছে তার মনিব ও মেনটর, প্রাক্তন বক্সার চার্লি!

ভবিষৎতে পৃথিবীতে রোবটে রোবটে মল্লযুদ্ধ হবে সবচাইতে জনপ্রিয় আর লাভজনক খেলা। এরই অংশ হিসেবে বক্সার রোবট এটমকে ঘিরে একটি বায়বীয় ও মানবীয় কাহিনী গড়ে ওঠে! এটমের রয়েছে প্রখর ব্যক্তিত্ববোধ, রসবোধ, একটি চমৎকার গল্প আর সে কিন্তু সত্যিই ঘুষি সইতে ও দিতে পারে।  এটি আদ্যোপান্ত সাই-ফাই ও খেলাধুলার সংমিশ্রন। জিতেছে একটি অস্কার নমিনেশন।

(৩)

Robot & Frank (2012)
Robot & Frank poster Rating: 7.1/10 (47923 votes)
Director: Jake Schreier
Writer: Christopher D. Ford (screenplay)
Stars: Frank Langella, James Marsden, Liv Tyler, Peter Sarsgaard
Runtime: 89 min
Rated: PG-13
Genre: Comedy, Crime, Drama
Released: 19 Sep 2012
Plot: Set in the near future, an ex-jewel thief receives a gift from his son: a robot butler programmed to look after him. But soon the two companions try their luck as a heist team.

চরিত্রঃ রোবট।

একজন বৃদ্ধ সিধেঁল চোর  জীবনের শেষ বয়সে এসে নিজ পুত্র কর্তৃক একটি রোবট নিজের সার্বক্ষনিক সঙ্গী ও দেখাশোনার জন্য উপহার পায়। প্রথমে তো সে রোবটটিকেই দুই চোখে দেখতেই পারতো না। কিন্তু যেদিন থেকে সে আবিস্কার করলো যে, রোবটির কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা রয়েছে অথচ সে অপরাধ ও দৈনন্দিন কাজকর্মের মাঝে পার্থক্য করতে পারে না, তখনি সে তাকে নিজের চুরি করার  অভিজ্ঞতা ও দক্ষতা শেখাতে শুরু করলো, যাতে করে তার জীবনের শেষ চুরিটি করতে রোবটটি তাকে সাহায্য করতে পারে। আর রোবটও অত্যন্ত সুচারূরুপে সে সব রপ্ত করে নেওয়া শুরু করলো।  অবস্থা এমনই হলো যে, এক পর্যায়ে দেখা গেলো, রোবটটি ছাড়া বৃদ্ধ একটা সেকেন্ডেও চলতে পারছে না, সে তার উপর পুরোপুরি নির্ভরশীল হয়ে গেছে।

(২)

Robosapien: Rebooted (2013)
Robosapien: Rebooted poster Rating: 4.7/10 (820 votes)
Director: Sean McNamara
Writer: Avi Arad (story), Max Botkin
Stars: Kim Coates, Penelope Ann Miller, David Eigenberg, Jae Head
Runtime: 86 min
Rated: PG
Genre: Adventure, Drama, Family
Released: 28 May 2013
Plot: A robot boy and a human boy team up to save their respective parents, who are being held captive by the organization that funded the robot’s creator.

চরিত্রঃ Cody (কোডি)

একটি বেসরকারী ওয়েপন রিসার্চ কোম্পানি ১০ মিলিয়ন ডলারব্যয়ে জীবনরক্ষাকারী ও উদ্ধারকর্মী হিসেবে একটি প্রোটো টাইপ ছোট্ট রোবট বানায়। কিন্তু কোম্পানীর মালিকের সাথে রোবটের প্রোগ্রামারের বিবাদের জের ধরে রোবট কোডি কোম্পানি এবং প্রোগ্রামার উভয়ের কাছ থেকেই হারিয়ে যায়। এবং তাকে খুজেঁ পায় একটা বালক, এদিকে কোডির আগেকার স্মৃতি সব নষ্ট হয়ে যায় বড় ধরনের ঝাকিঁ খাবার ফলে। এই কারনে তাকে আবার রিপ্রোগ্রাম করে সেই প্রোডিজি* বালকটি! শেষ পর্যন্ত ঘটনা মোড় নেয় ভয়াবহ এক পরিনতিতে। মানব শিশু আর রোবটের ভেতরকার নিদারুন সম্পর্ক আর অভূতপূর্ব এক রসায়নের মিশেল এই মুভিটি। বিশেষ করে, কোডিকে সাময়িক হারিয়ে ছেলেটি ও তার পরিবার যে অতি আবেগীয় প্রতিক্রিয়া দেখায়, একটি রোবটের জন্য তা বিরাট পাওনা, আর সে অংশটুকু দেখে অনেক শিশু কিশোরই চোখ ভিজে যাবে!

(*প্রডিজি = অল্প বয়সেই যে সকল বাচ্চার ভেতর অদ্ভুত ও দুর্লভ প্রতিভার বিচ্ছুরণ ঘটে, তাদেরকে এক কথায় ইংরেজীতে ’প্রডিজি’ বা ‘প্রডিজি ইনফ্যান্ট’ বলে)

(১)

Chappie (2015)
Chappie poster Rating: 7.0/10 (88051 votes)
Director: Neill Blomkamp
Writer: Neill Blomkamp, Terri Tatchell
Stars: Sharlto Copley, Dev Patel, Ninja, Yo-Landi Visser
Runtime: 120 min
Rated: R
Genre: Action, Sci-Fi, Thriller
Released: 6 Mar 2015
Plot: In the near future, crime is patrolled by a mechanized police force. When one police droid, Chappie, is stolen and given new programming, he becomes the first robot with the ability to think and feel for himself.

চরিত্রঃ চ্যাপি!

মনে আছে District 9 এর কথা? নোংরা বস্তিকে যে কিনা এলিয়েন রোবটদের আবাসস্থল বানিয়েছিলো। রোবটদের নিয়ে এ ধরনের ভিন্ন মাত্রার অভিনব চিন্তাধারা একমাত্র নীল ব্লুমক্যাম্পের পক্ষেই সম্ভব। এ বছর মুক্তি পেয়েছে তার অসাধারন   আরেকটি সাইফাই রোবটিক মুভি – চ্যাপি। এটি এমন  একটি রোবট চরিত্রের গল্প, যেটি দেখতে বসে হয়তো সামান্য একটি যন্ত্রমানবের জন্য নিজের অজান্তেই আপনার চোখের কোন বার বার ভিজে উঠবে। মুভির সংলাপ ও কাহিনীর বুনন এতটাই হৃদয়স্পর্শী  যে, এটি দেখার সময় চ্যাপি নামের কিউট, ফানি আর ছোট্ট সদ্যজাত নবজাতক (!) রোবটটির জন্য আপনার হৃদয়  বার বার হু ‍হু করে কেদেঁ উঠবে।

chappie_fan_art_poster_by_gojirakaiju3d-d8eeo2mমজার ব্যাপার হলো, রিয়েল ষ্টিল মুভিতে হিউ জ্যাকম্যান অন্যতম প্রধান  ভূমিকায় অভিনয় করলেও এই মুভিতে তাকে ভয়ানক হিংস্র এক  খলনায়কের ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে দেখা যায়। 

যে গুরুত্ববহ চরিত্রদ্বয়কে উল্লেখ করতে ভুলে গিয়েছিলামঃ

বোনাস রোবট চরিত্রঃ (১) – Baymax

মুভির নামঃ Big Hero 6

Big Hero 6 (2014)
Big Hero 6 poster Rating: 8.2/10 (43,306 votes)
Director: Don Hall, Chris Williams
Writer: Jordan Roberts (screenplay), Daniel Gerson (screenplay), Robert L. Baird (screenplay), Duncan Rouleau (based upon the characters created by), Steven T. Seagle (based upon the characters created by), Paul Briggs (head of story), Joseph Mateo (head of story)
Stars: Scott Adsit, Ryan Potter, Daniel Henney, T.J. Miller
Runtime: 102 min
Rated: PG
Genre: Animation, Action, Adventure
Released: 07 Nov 2014
Plot: The special bond that develops between plus-sized inflatable robot Baymax, and prodigy Hiro Hamada, who team up with a group of friends to form a band of high-tech heroes.

’বে ম্যাক্স’ নামক বিশালাকার এক ইনফ্ল্যাটেবল* রোবট আর আরেকটি প্রোডিজি বালক ‘হিরো হামাডা’র গল্প। বে ম্যাক্সকে বানায় হামাডার বড় ভাই। কিন্তু সে এক দুর্ঘটনায় মারা পড়লে বে ম্যাক্সের দায়িত্ব তুলে নেয় তার ছোট ভাই হামাডা, এবং সে ও তার কয়েকজন বন্ধু মিলে একটি জোট গঠন করে একদল বিগ হিরো বানাবার জন্য!

images (1)

(*ইনফ্ল্যাটেবল = ফুঁ দিয়ে/বাতাস ভরে ফোলানো যায় এমন বস্তু।)

বোনাস রোবট চরিত্রঃ (২) – A.I

A.I. Artificial Intelligence (2001)
A.I. Artificial Intelligence poster Rating: 7.1/10 (218520 votes)
Director: Steven Spielberg
Writer: Brian Aldiss (short story “Supertoys Last All Summer Long”), Ian Watson (screen story), Steven Spielberg (screenplay)
Stars: Haley Joel Osment, Frances O’Connor, Sam Robards, Jake Thomas
Runtime: 146 min
Rated: PG-13
Genre: Adventure, Drama, Sci-Fi
Released: 29 Jun 2001
Plot: A highly advanced robotic boy longs to become “real” so that he can regain the love of his human mother.

ষ্টিফেন স্পিলবারগের অমর সৃষ্টি, সাড়াজাগানিয়া সাই-ফাই মুভি এ.আই।  আদতে  এটিও কোডি বা চ্যাপির মতোই একটি রোবটিক বাচ্চা ছেলের সাথে মানব-পরিবারের বন্ধনের মর্মভেদী গল্প, যে কিনা তার মানব-মাতার সান্নিধ্য পেতে ব্যাকুল হয়ে ওঠে। মূলতঃ ছোট গল্প “Supertoys Last All Summer Long” থেকে এই মুভিটির প্লট তৈরী করেন ষ্টিফেন । এটি দুটি ক্যাটাগরিতে অস্কার নমিনেশন পায়।

BIG HERO 6

BIG HERO 6 Facebook Banner

এছাড়াও লিষ্টে যে কেউ চাইলে ট্রান্সফর্মারসের ’অপটিমাস প্রাইম’ বা এক্স মেশিনার ‘Ava’ কে রাখতে পারেন। তবে আমি মনে করি, লিষ্টের বাকী রোবটগুলো যেভাবে মানুষের সাথে একটি পোর্সোনালাইজড ক্যারেক্টার হিসেবে ওতপ্রতভাবে মিশে যেতে পেরেছে, তেমনি অপটিমাস প্রাইম বা এভা পারেনি। অপ. প্রাইম  শুধু একজন অতিকায় যুদ্ধবাজ ও বিধ্বংসী রোবট-নেতাই শুধু। আর এভা একজন বাকপটু  ও ছলনাময়ী রোবট-নারীর  AI. যদিও উভয় মুভিতে উভয়ের ভূমিকা অনস্বীকার্য।

অপটিমাস প্রাইম – রিয়েল ভিডিও গেইম রোবট চরিত্র

file_124561_0_exmachinaposterlarge

এক্স মেশিনার অন্যতম অফিসিয়াল পোষ্টার। প্রধান চরিত্র এভাকে দেখা যাচ্ছে।

Comments

comments

error: Please dont copy DhakaTonic! কপি করে লুজার রা!